ঢাকা ০২:৫৪ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

অসহায় নারী পুরুষ ও শিশু কল্যাণ ফাউন্ডেশন এর উদ্যোগে বৃক্ষ রোপন

ভোলা প্রতিনিধি : ভোলার পরানগঞ্জ হালিমা খাতুন গার্লস স্কুল এন্ড কলেজ প্রাঙ্গণে ৫ জুন বিশ্ব পরিবেশ দিবসকে কেন্দ্র করে অদ্য ৮ জুন (শনিবার) সকাল ১১ ঘটিকার সময় শতাধিক বিভিন্ন ফলের বৃক্ষ রোপন এর কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়।

আমন্ত্রণ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উত্তর চরপোটকা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ মহিউদ্দিন তিনি সংক্ষিপ্ত বলেন, শুধু গাছ লাগানোই আমাদের দায়িত্ব নয়, গাছ বড় হওয়া পর্যন্ত পরিচর্যা করতে হবে। “গাছগুলি আমাদের জন্য নিঃশ্বাস ছেড়ে দেয়। যাতে করে আমরা বেঁচে থাকার জন্য শ্বাস নিতে পারি। আমরা কি কখনও তা ভুলে যেতে পারি? চলুন, আমাদের বিনষ্ট না হওয়া পর্যন্ত আমরা প্রতিটি দম নিয়ে গাছগুলিকে ভালবাসি।” কিন্তু একটা পরিসংখ্যানে দেখা গেছে যে, বিশ্বে প্রতি মিনিটে ১ মিলিয়ন প্লাস্টিক বর্জ্য উৎপন্ন হচ্ছে। যার কারনে জীবননাশের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। মানুষের ওপর ও এর বিরূপ প্রভাব পড়ছে। প্লাস্টিক বর্জ্যগুলো বছরের পর বছর পরিবেশে থেকে যাচ্ছে, যা বিয়োজিত হয়ে উৎপন্ন হচ্ছে বিষাক্ত মাইক্রোপ্লাস্টিক। এটি নিশ্বাসের সঙ্গে আমাদের ফুসফুস এবং রক্তে মিশে যাচ্ছে। এর ফলে শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে জন্ম দিচ্ছে নানাবিধ রোগে।’

প্রধান অতিথির বক্তব্যে হালিমা খাতুন স্কুল গার্লস এন্ড কলেজের প্রধান শিক্ষক টিপু সুলতান বলেন, আমাদের উচিত গাছ রোপণের মাধ্যমে পৃথিবীকে রক্ষা করা’ তার জন্য বেসি বেসি বৃক্ষ রোপণের দ্বারা অবহ্যাত রাখতে হবে। যেমন পৃথিবীকে সুন্দর ও সবুজ করা জরুরি, তার চেয়ে বেশি জরুরি আমাদের এই সুন্দর পৃথিবীকে দূষণমুক্ত রাখা। আমরা বলে থাকি ‘তারুণ্যই শক্তি, তরুণেরাই দেশের ভবিষ্যৎ, কিন্তু দেখা গেছে, ইদানীং তরুণসমাজের দ্বারাই আমাদের পরিবেশ ও জীববৈচিত্র্য হুমকির মুখে পড়ছে। এর অন্যতম কারণ দূষণ। তাই এবারের বৃক্ষ রোপণ কর্মসূচি-২০২৪ এর ‘প্লাস্টিকমুক্ত পৃথিবী চাই, তার জন্য বেসি বেসি গাছ লাগাই, জীবন বাঁচাই’।

সমাপ্তি বক্তব্যে অসহায় নারী পুরুষ ও শিশু কল্যাণ ফাউন্ডেশন ভোলা জেলা শাখার সভাপতি নেওয়াজ শরীফ বলেন, গাছ কাটা আপনার নখ কাটার মতো নয়, তবে শ্বাস কাটানোর মতো। “যারা গাছ বজায় রাখতে পারবে না, তারা শীঘ্রই এমন একটি পৃথিবীতে বাস করবে। যা মানুষকে ধরে রাখতে পারে না।” তবে আপনি হয়তো লক্ষ লক্ষ গাছ লাগাতে পারেন না, কিন্তু আপনি যদি ভালবাসা আর যত্নের সাথে একটি গাছ দেখাশোনা শুরু করেন, তাহলে সেটাও আপনাকে মহান করে তুলবে।“ ইনশাআল্লাহ তাই “যে বৃক্ষ রোপন করে, সে নিজেকে ছাড়া ও অন্যকে ভালবাসতে ও জানে ইত্যাদি।”

উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন অসহায় নারী পুরুষ ও কল্যাণ ফাউন্ডেশন ভোলা জেলা শাখার সভাপতি নেওয়াজ শরীফ, অর্থ সম্পাদক তানভির তারেক, যুগ্ম সাধারণ মহিলা বিষয়ক সম্পাদীকা উম্মে হাফছা, সংবাদকর্মী ও কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক তানজিল হোসেন কার্যকারী সদস্য মোঃ রিপন ভোলা জেলা উন্নয়ন ফোরাম এর সভাপতি মোঃ নিলয় খান ফাহিম, মোসাঃ লিমা রহমান, মোসাঃ আমেনা খানম সহ স্কুলের শিক্ষকবৃন্দ ও সোনালী শিক্ষার্থীগণ প্রমূখ।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

জনপ্রিয় সংবাদ

হু হু করে বাড়ছে তিস্তার পানি নদীপাড়ে আতঙ্ক বিরাজ

অসহায় নারী পুরুষ ও শিশু কল্যাণ ফাউন্ডেশন এর উদ্যোগে বৃক্ষ রোপন

Update Time : ১০:২৯:৩৪ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৮ জুন ২০২৪

ভোলা প্রতিনিধি : ভোলার পরানগঞ্জ হালিমা খাতুন গার্লস স্কুল এন্ড কলেজ প্রাঙ্গণে ৫ জুন বিশ্ব পরিবেশ দিবসকে কেন্দ্র করে অদ্য ৮ জুন (শনিবার) সকাল ১১ ঘটিকার সময় শতাধিক বিভিন্ন ফলের বৃক্ষ রোপন এর কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়।

আমন্ত্রণ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উত্তর চরপোটকা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ মহিউদ্দিন তিনি সংক্ষিপ্ত বলেন, শুধু গাছ লাগানোই আমাদের দায়িত্ব নয়, গাছ বড় হওয়া পর্যন্ত পরিচর্যা করতে হবে। “গাছগুলি আমাদের জন্য নিঃশ্বাস ছেড়ে দেয়। যাতে করে আমরা বেঁচে থাকার জন্য শ্বাস নিতে পারি। আমরা কি কখনও তা ভুলে যেতে পারি? চলুন, আমাদের বিনষ্ট না হওয়া পর্যন্ত আমরা প্রতিটি দম নিয়ে গাছগুলিকে ভালবাসি।” কিন্তু একটা পরিসংখ্যানে দেখা গেছে যে, বিশ্বে প্রতি মিনিটে ১ মিলিয়ন প্লাস্টিক বর্জ্য উৎপন্ন হচ্ছে। যার কারনে জীবননাশের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। মানুষের ওপর ও এর বিরূপ প্রভাব পড়ছে। প্লাস্টিক বর্জ্যগুলো বছরের পর বছর পরিবেশে থেকে যাচ্ছে, যা বিয়োজিত হয়ে উৎপন্ন হচ্ছে বিষাক্ত মাইক্রোপ্লাস্টিক। এটি নিশ্বাসের সঙ্গে আমাদের ফুসফুস এবং রক্তে মিশে যাচ্ছে। এর ফলে শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে জন্ম দিচ্ছে নানাবিধ রোগে।’

প্রধান অতিথির বক্তব্যে হালিমা খাতুন স্কুল গার্লস এন্ড কলেজের প্রধান শিক্ষক টিপু সুলতান বলেন, আমাদের উচিত গাছ রোপণের মাধ্যমে পৃথিবীকে রক্ষা করা’ তার জন্য বেসি বেসি বৃক্ষ রোপণের দ্বারা অবহ্যাত রাখতে হবে। যেমন পৃথিবীকে সুন্দর ও সবুজ করা জরুরি, তার চেয়ে বেশি জরুরি আমাদের এই সুন্দর পৃথিবীকে দূষণমুক্ত রাখা। আমরা বলে থাকি ‘তারুণ্যই শক্তি, তরুণেরাই দেশের ভবিষ্যৎ, কিন্তু দেখা গেছে, ইদানীং তরুণসমাজের দ্বারাই আমাদের পরিবেশ ও জীববৈচিত্র্য হুমকির মুখে পড়ছে। এর অন্যতম কারণ দূষণ। তাই এবারের বৃক্ষ রোপণ কর্মসূচি-২০২৪ এর ‘প্লাস্টিকমুক্ত পৃথিবী চাই, তার জন্য বেসি বেসি গাছ লাগাই, জীবন বাঁচাই’।

সমাপ্তি বক্তব্যে অসহায় নারী পুরুষ ও শিশু কল্যাণ ফাউন্ডেশন ভোলা জেলা শাখার সভাপতি নেওয়াজ শরীফ বলেন, গাছ কাটা আপনার নখ কাটার মতো নয়, তবে শ্বাস কাটানোর মতো। “যারা গাছ বজায় রাখতে পারবে না, তারা শীঘ্রই এমন একটি পৃথিবীতে বাস করবে। যা মানুষকে ধরে রাখতে পারে না।” তবে আপনি হয়তো লক্ষ লক্ষ গাছ লাগাতে পারেন না, কিন্তু আপনি যদি ভালবাসা আর যত্নের সাথে একটি গাছ দেখাশোনা শুরু করেন, তাহলে সেটাও আপনাকে মহান করে তুলবে।“ ইনশাআল্লাহ তাই “যে বৃক্ষ রোপন করে, সে নিজেকে ছাড়া ও অন্যকে ভালবাসতে ও জানে ইত্যাদি।”

উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন অসহায় নারী পুরুষ ও কল্যাণ ফাউন্ডেশন ভোলা জেলা শাখার সভাপতি নেওয়াজ শরীফ, অর্থ সম্পাদক তানভির তারেক, যুগ্ম সাধারণ মহিলা বিষয়ক সম্পাদীকা উম্মে হাফছা, সংবাদকর্মী ও কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক তানজিল হোসেন কার্যকারী সদস্য মোঃ রিপন ভোলা জেলা উন্নয়ন ফোরাম এর সভাপতি মোঃ নিলয় খান ফাহিম, মোসাঃ লিমা রহমান, মোসাঃ আমেনা খানম সহ স্কুলের শিক্ষকবৃন্দ ও সোনালী শিক্ষার্থীগণ প্রমূখ।