ঢাকা ০১:৫৪ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রূপগঞ্জে শিক্ষকের বাড়িতে হামলা, ভাংচুর ও লুটপাটের ঘটনার আসামীদের গ্রেফতার করছেনা পুলিশ

মাহাবুবুর রহমান রনি, রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ): নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার রূপগঞ্জ ইউনিয়নের মুশুরী(তেলিপাড়া) গ্রামের বাসিন্দা কাজী আব্দুল হামিদ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক মোঃ মাজাম্মেল হকের বাড়িতে হামলা, ভাংচুর ও লুটপাটের ঘটনায় গত ১৬ দিনেও আসামীদের গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ। আসামীরা প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়ালেও নোটিশের তালিকায় তারা পলাতক রয়েছে।

পুলিশ জানায়, গত ২৩ এপ্রিল ২০২৪ইং তারিখে কাজী আব্দুল হামিদ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক মোঃ মাজাম্মেল হকের মুশুরী(তেলিপাড়া) গ্রামের বাড়িতে ১৫/১৬ সদস্যে এক দল সন্ত্রাসী চাইনিজ কুড়াল, চাপাতি, ছেনদা, রামদা, টেটা, লোহার রড, ইস্টিলের এসএস পাইপ ও লাঠিসোটাসহ দেশীয় অস্ত্রে শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে হামলা চালায়। হামলাকারীরা শিক্ষকের বসতঘরের দরজা, জানালা ও থাইগøাস ভাংচুর করে ঘরে রক্ষিত নগদ টাকা ও ৫ভড়ি স্বর্ণালংকারসহ ৮লক্ষাধীক টাকার মালামাল লুটপাট করে নেয়ে যায়। শিক্ষকের ছোট ভাই আলমগীরের স্ত্রী মনিরা আক্তার(৩০) বাধা দিলে তাকে গুরুতর আহত ও শ্লীলতাহানি করে। পরে আহত অবস্থায় তাকে রূপগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

এ ব্যপারে শিক্ষক মোঃ মোজাম্মেল হক বাদী হয়ে মুশুরী(তেলিপাড়া) গ্রামের ১। মোঃ মোমেন মিয়া(৪৪), ২। হুমায়ুন কবির(৪০), ৩। শামীম কবির(৪০), ৪। মোশারফ হোসেন(৪৫), ৫। মোয়াজ্জেম(৪৭), ৬। আরিফ(২০), ৭। রায়হান(২৫), ৮। রাকিব(২০), ৯। মেহেদী(১৯) ও ১০। ময়না আক্তারকে(৩৬) নামীয় ও অজ্ঞাত আরো ৪/৫ জনের বিরুদ্ধে রূপগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলা রুজু হওয়ার পর থেকে আসামীরা প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়ালেও পুলিশ তাদের গ্রেফতার করছেনা বলে অভিযোগ রয়েছে।

এ ব্যপারে রূপগঞ্জ থানা ওসি দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, এ ঘটনায় রূপগঞ্জ থানায় মামলা রুজু করা হয়েছে। আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশ নিয়মিত অভিযান পরিচালনা করছে। আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশ তৎপর রয়েছে।

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

জনপ্রিয় সংবাদ

হু হু করে বাড়ছে তিস্তার পানি নদীপাড়ে আতঙ্ক বিরাজ

রূপগঞ্জে শিক্ষকের বাড়িতে হামলা, ভাংচুর ও লুটপাটের ঘটনার আসামীদের গ্রেফতার করছেনা পুলিশ

Update Time : ০৪:৪৬:০৯ অপরাহ্ন, বুধবার, ৮ মে ২০২৪

মাহাবুবুর রহমান রনি, রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ): নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার রূপগঞ্জ ইউনিয়নের মুশুরী(তেলিপাড়া) গ্রামের বাসিন্দা কাজী আব্দুল হামিদ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক মোঃ মাজাম্মেল হকের বাড়িতে হামলা, ভাংচুর ও লুটপাটের ঘটনায় গত ১৬ দিনেও আসামীদের গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ। আসামীরা প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়ালেও নোটিশের তালিকায় তারা পলাতক রয়েছে।

পুলিশ জানায়, গত ২৩ এপ্রিল ২০২৪ইং তারিখে কাজী আব্দুল হামিদ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক মোঃ মাজাম্মেল হকের মুশুরী(তেলিপাড়া) গ্রামের বাড়িতে ১৫/১৬ সদস্যে এক দল সন্ত্রাসী চাইনিজ কুড়াল, চাপাতি, ছেনদা, রামদা, টেটা, লোহার রড, ইস্টিলের এসএস পাইপ ও লাঠিসোটাসহ দেশীয় অস্ত্রে শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে হামলা চালায়। হামলাকারীরা শিক্ষকের বসতঘরের দরজা, জানালা ও থাইগøাস ভাংচুর করে ঘরে রক্ষিত নগদ টাকা ও ৫ভড়ি স্বর্ণালংকারসহ ৮লক্ষাধীক টাকার মালামাল লুটপাট করে নেয়ে যায়। শিক্ষকের ছোট ভাই আলমগীরের স্ত্রী মনিরা আক্তার(৩০) বাধা দিলে তাকে গুরুতর আহত ও শ্লীলতাহানি করে। পরে আহত অবস্থায় তাকে রূপগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

এ ব্যপারে শিক্ষক মোঃ মোজাম্মেল হক বাদী হয়ে মুশুরী(তেলিপাড়া) গ্রামের ১। মোঃ মোমেন মিয়া(৪৪), ২। হুমায়ুন কবির(৪০), ৩। শামীম কবির(৪০), ৪। মোশারফ হোসেন(৪৫), ৫। মোয়াজ্জেম(৪৭), ৬। আরিফ(২০), ৭। রায়হান(২৫), ৮। রাকিব(২০), ৯। মেহেদী(১৯) ও ১০। ময়না আক্তারকে(৩৬) নামীয় ও অজ্ঞাত আরো ৪/৫ জনের বিরুদ্ধে রূপগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলা রুজু হওয়ার পর থেকে আসামীরা প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়ালেও পুলিশ তাদের গ্রেফতার করছেনা বলে অভিযোগ রয়েছে।

এ ব্যপারে রূপগঞ্জ থানা ওসি দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, এ ঘটনায় রূপগঞ্জ থানায় মামলা রুজু করা হয়েছে। আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশ নিয়মিত অভিযান পরিচালনা করছে। আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশ তৎপর রয়েছে।